আ’পত্তিকর স্পর্শ, কুপ্রস্তাব নিয়ে মুখ খুললেন ঈশা!


ভারতীয় সিনেমার জনপ্রিয় অভিনেত্রী ঈশা কোপিকার। দীর্ঘ ক্যারিয়ারে হিন্দি, তেলেগু, কন্নড়, মারাঠি সিনেমায় অভিনয় করেছেন। তবে অভিনয়ের চেয়ে বেশি পরিচিতি পান আইটেম গানে পারফর্ম করে।

ঈশার অভিনয় ক্যারিয়ারের যাত্রা খুব একটা মসৃণ ছিল না। নানারকম প্রতিবন্ধকতার মধ্য দিয়ে আজকের অবস্থান তৈরি করেছেন। অভিনেতারা যেমন কুপ্রস্তাব দিয়েছেন, তেমনি অনেক পরিচালকরাও আপত্তিকরভাবে তার শরীর স্পর্শ করেছেন বলে অভিযোগ তার।

সিদ্ধার্থ কানানকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে জীবনের তিক্ত অভিজ্ঞতার কথা জানিয়েছেন ঈশা। কথার শুরুতে ঈশা কোপিকার বলেন, “আপনি ‘মি টু’র বিষয়টি শুনেছেন? যদি এর মূল্যটা বুঝেন, তবে এটি খুবই কঠিন ছিল। আমার সময়ের অনেক অভিনেত্রী ইন্ডাস্ট্রি ছেড়ে দিয়েছেন। খুব কম মেয়ে রয়েছেন, যারা হাল ছাড়েননি। হাল না ছাড়ার তালিকা খুবই ছোট। তবে তাদের মধ্যে আমি একজন।’

১৮ বছর বয়সে কুপ্রস্তাব পেয়েছিলেন ঈশা। তা উল্লেখ করে তিনি বলেন, ‘আমার বয়স যখন ১৮ বছর, তখন একজন অভিনেতার ব্যক্তিগত সহকারী ও একজন অভিনেতা আমাকে কুপ্রস্তাব দিয়েছিলেন। তারা বলেছিলেন, যদি কাজ করতে চাও তবে অভিনেতাদের সঙ্গে ‘ফ্রেন্ডলি’ হতে হবে। আমি খুবই ‘ফ্রেন্ডলি’ মানুষ। কিন্তু তারা ‘ফ্রেন্ডলি’ দিয়ে কি বুঝাতে চেয়েছেন?’

একটি ঘটনা বর্ণনা করে ঈশা বলেন, “আমার বয়স যখন ২৩ বছর, তখন একজন অভিনেতা আমাকে জিজ্ঞাসা করেন, ‘তুমি কি একা আমার সঙ্গে দেখা করতে পারবে? ড্রাইভার বা অন্য কাউকে সঙ্গে আনতে পারবে না। কারণ আমাকে নিয়ে এমনিতেই অনেক গুঞ্জন উড়ছে। অন্য অভিনেত্রীদের সঙ্গে নাম জড়িয়েছে।’ কিন্তু এই প্রস্তাব আমি প্রত্যাখান করি। তাকে বলি, আমি একা আসতে পারব না। এই ব্যক্তি বলিউডের ‘এ’ ক্যাটাগরির একজন অভিনেতা।”

অভিনেতার ব্যক্তিগত সহকারী ও পরিচালকরা আপত্তিকরভাবে ঈশার শরীর স্পর্শ করতেন। এ তথ্য উল্লেখ করে ঈশা বলেন, “তারা কেবল আপত্তিকরভাবে স্পর্শই করতেন না, বরং হাত চেপে ধরে বলতেন, ‘নায়কদের সঙ্গে ‘ফ্রেন্ডলি’ সম্পর্ক তৈরি করতে হবে।”

মডেলিংয়ের মাধ্যমে বিনোদন দুনিয়ায় পা রাখেন ঈশা। ১৯৯৭ সালে তেলেগু সিনেমা ‘ডাব্লিউ বাই ভি. ভারা প্রসাদ’ দিয়ে বড় পর্দায় অভিষেক ঘটে তার। এরপরের বছরই দেখা যায় হিন্দি ভাষার ‘এক থা দিল, এক থি ধড়কন’ সিনেমায়।

২০০২ সালে রাম গোপাল ভার্মার ‘কোম্পানি’ সিনেমার আইটেম গান ‘খাল্লাস’ দিয়ে ব্যাপক পরিচিতি লাভ করেন তিনি। সেটা আরো ছড়িয়ে পড়ে আরেকটি আইটেম নাম্বার ‘ইশক সমন্দর’-এর পর। তবে এখন কাজের সংখ্যা কমিয়ে দিয়েছেন ঈশা।

ঈশা অভিনীত সর্বশেষ মুক্তিপ্রাপ্ত সিনেমা ‘আয়ালান’। তেলেগু ভাষার এ সিনেমা চলতি বছরের ১২ জানুয়ারি মুক্তি পায়। এরপর আর কোনো সিনেমার কাজ হাতে নেননি এই অভিনেত্রী।

তথ্যসূত্র: ইন্ডিয়া টুডে

৪ মিনিট ৪৩ সেকেন্ডের ভিডিও দিয়ে মিডিয়া কাঁপালেন সাদিয়া!

Full Video